ফায়ার অ্যালার্ম



আসসালামু আলাইকুম,

কেমন আছো তোমরা সকলে?


তোমরা যেমন বসে আছো, আমিও তেমন বসে আছি এই ছুটিতে।

তো আর বসে থাকার দরকার নেই, আসো কার্যকরী একটা ফায়ার অ্যালার্ম বানিয়ে ফেলি!

ফায়ার অ্যালার্ম এখন সব বড় বড় স্থাপনায় ব্যাবহার হচ্ছে। ডাটাসার্ভার, অফিস, ব্যাংক এমনকি বাসা বাড়িতেও।
এটি আগুন লাগার আগেই ধোঁয়া সেন্স করে অ্যালার্ম চালু করে আশে পাশের মানুষকে সতরক করে দেয় যাতে তারা প্রয়োজনীয় ব্যাবস্থা নিতে পারে। তবে অনেক ফায়ার সেন্সরে পাম্প যুক্ত থাকে যাতে নির্দিষ্ট সময় নির্দিষ্ট যায়গায় পানি দিয়ে আগুন নিয়ন্ত্রণ করা যায়।

এটি যে কেবল সম্পদ রক্ষা করে টা নয়, অনেক ক্ষেত্রে প্রাণও রক্ষা করে।

আমরা আজকে সিম্পল একটা ফায়ার অ্যালার্ম বানাবো যা মূলত থারমিস্টর বা থার্মাল রিসিস্টর এবং আইসি এনই ৫৫৫ ই [NE555E] বা ৫৫৫ টাইমার আইসি দিয়ে তৈইরি। এটা থারমিস্টর দিয়ে আসে পাশের তাপমাত্রার তুলনা করে একটা অ্যালার্ম বাজাতে পারে।
এই সারকিটে মুল পার্টস হল থারমিস্টর। থারমিস্টর হল একটি তাপমাত্রা সেনসিটিভ রিসিস্টর। সে তাপের ওপর ভিত্তি করে রিসিস্টেন্স বারায় বা কমায়।


এখানে ৫৫৫ টাইমারকে এস্টেবল মোডে সেট করা থাকবে, তাই সে একটা অ্যালার্ম টোনের মতো আওয়াজ করবে।
আমরা আর১ [R1] এর মান বদলে আওয়াজ বদলাতে পারি কিংবা আমরা ভেরিএবল রিসিস্টর বা পট ব্যাবহার করতে পারি যার মান হতে হবে ১ কিলো ওহম।

যা যা লাগবে,


  1. 555 Timer IC
  2. NPN Transistor BC547
  3. Thermistor (10K)
  4. Resistors (1K, 100K, 4.7K)
  5. Variable resistor (1M)
  6. Capacitor (10uF)
  7. Buzzer and Battery (9v)







তুমি নিশ্চয়ই উপরে ডায়াগ্রাম দেখতে পাচ্ছ। যখন থারমিস্টরের কাছে কোন আগুন থাকে না তখন তার রোধ থাকে ১০০০০ ওহম বা ১০ কিলো ওহম। আর ট্রাঞ্জিস্টর তখন অন অবস্থায় থাকে কারন সেখানে পর্যাপ্ত নিগেতিভ ভোল্টেজ নেই, এবং এতে রিসেট পিনে চার্জও নিগেতিভ থাকবে। তখন আর ৫৫৫ আইসি কাজ করবে না।

যখন থারমিস্টর কে তাপ দেওয়া হবে, এর রোধ কমতে থাকবে, এবং যখন কমতে থাকে তখন একসময় সেই ভোল্টেজ এতো কমে যে ট্রাঞ্জিস্টরের অপারেটিং ভোল্টেজের নিচে চলে যায়।তখন ট্রাঞ্জিস্টর বন্ধ হয়ে যায়। এবং যখন বন্ধ হয়ে যায় তখন রিসেট পিন R3 দিয়ে পজিটিভ ভোল্ট পায় এবং ৫৫৫ চালু হয় এবং বাযার আওয়াজ করে।

সেন্সিতিভিটি কন্ট্রোল করতে আমরা ভেরিএবলটি ব্যাবহার করবো।

আবার আমরা DR25 জার্মেনিয়াম ডায়োড দিয়েও হিট সেন্সর বানাতে পারি। যখন DR25 জার্মেনিয়াম ডায়োড রিভার্স বায়াসে কানেক্ট করা হয়, তখন এর প্রচুর রিভার্স রিসিস্টেন্স থাকে এবং এটি কেবল ৭০ ডিগ্রি পর্যন্ত তাপমাত্রা কন্ডাক্ট করে।


শেয়ার করুন

লেখকঃ

আমি তাওসিফ তুরাবি, অনলাইনাম (অনলাইন + নাম) ব্লগার তাওসিফ। এখন, ২০১৬ পর্যন্ত আমি ১৬ বছরের এক কিশোর। পড়াশোনা করি শহীদ পুলিশ স্মৃতি কলেজে। টেক ব্লগ লিখতে ভালবাসি। সাইন্স ফিকশন আর গল্প লিখতে পছন্দ করি।  জিআর+ ব্লগের এর একজন প্রতিষ্ঠাতা অ্যাডমিন।
আমাদের একটা ওয়েব ডেভেলপার ফার্ম আছে যার নাম জিআর+ আইটি বাংলাদেশ
এছাড়া আমার ব্যাক্তিগত ব্লগ রয়েছে। আমার ফেসবুক আইডিতে আমার সাথে সর্বক্ষণ যোগাযোগ করতে পারবেন। 


পূর্ববর্তী পোষ্ট
পরবর্তী পোষ্ট