২০০ ডলারের ল্যাপটপ HP Stream



কম দামের ল্যাপটপের মধ্যে অনেকগুলো সফল না হলেও ব্যর্থতা দেখেনি এইচপি স্ট্রিম। দামি ল্যাপটপের মূল্য ১০০০ ডলার থেকে শুরু হয়। কিন্তু এইচপি'র এই মডেলের শুরু মাত্র ২০০ ডলার থেকে।



বর্তমানে এখান চলছে উইন্ডোজ ১০ অপারেটিং সিস্টেম। তবে এর প্রসেসরটা একটু ধীরগতির। এর পর্দা ১১.৬ ইঞ্চি। নীলের দারুণ শেড দেওয়া হয়েছে দেহে। ল্যাপটপটির ১৩ ইঞ্চি পর্দার সংস্করণটির দাম ৩০ ডলার বেশি পড়বে।

দেহটি প্লাস্টিকের আবরণে মোড়ানো। খোলার পর এর উজ্জ্বল সাদা ও নিখুঁত একটি কিবোর্ড চোখে পড়বে। পলিশ করা নীল কিবোর্ডের ট্রের ওপর কি-গুলো বসে রয়েছে। এর ব্যাটারি বেশ শক্তিশালী। ভিডিও চলে টানা ৮ ঘণ্টা। মাইক্রোসফট অফিস ৩৬৫ এবং ১ টেরাবাইট ওয়ানড্রাইভ অনলাইন স্টোরেজ যার মূল্য ৭০ ডলারের সমান।

কমদামি ল্যাপটপ হওয়াতে এর কিছু সমস্যা রয়েছে। অভ্যন্তরের স্টোরেজটি ৩২ জিবি এসএসডি। একটি মাইক্রোএসডি স্লট আর দুটি ইউএসবি পোর্ট রয়েছে। টাচপ্যাড একটু ধীরগতির। পর্দাটি ১৩৬৬x৭৬৮ রেজ্যুলেশনের।

কিছু কমতি থাকলেও এটা উইন্ডোজ ১০ সাপোর্ট করে। ফেসবুক চালানোর জন্যে দারুণ। এ ছাড়া নেটফ্লিক্স, ব্লুটুথের মাধ্যমে স্ট্রিমিং অডিও চলে দারুণভাবে। ফটোশপ বা মাইক্রোসফট ওয়ার্ডের মতো কিছু বড় অ্যাপ দেওয়া হয়েছে। এটা আইপ্যাডের মতো পাতলা নয়। এইচপি স্ট্রিমের দামের তুলনায় মনোমুগ্ধকর ডিজাইন আর অনেক ক্ষেত্রে পারফরমেন্স একে দারুণ এক প্রযুক্তিপণ্যে পরিণত করেছে। 

সূত্র : কালের কণ্ঠ

শেয়ার করুন

লেখকঃ

আমি তাওসিফ তুরাবি, অনলাইনাম (অনলাইন + নাম) ব্লগার তাওসিফ। এখন, ২০১৬ পর্যন্ত আমি ১৬ বছরের এক কিশোর। পড়াশোনা করি শহীদ পুলিশ স্মৃতি কলেজে। টেক ব্লগ লিখতে ভালবাসি। সাইন্স ফিকশন আর গল্প লিখতে পছন্দ করি।  জিআর+ ব্লগের এর একজন প্রতিষ্ঠাতা অ্যাডমিন।
আমাদের একটা ওয়েব ডেভেলপার ফার্ম আছে যার নাম জিআর+ আইটি বাংলাদেশ
এছাড়া আমার ব্যাক্তিগত ব্লগ রয়েছে। আমার ফেসবুক আইডিতে আমার সাথে সর্বক্ষণ যোগাযোগ করতে পারবেন। 


পূর্ববর্তী পোষ্ট
পরবর্তী পোষ্ট