বাংলাদেশকে ভোট দিন নাসা স্পেস অ্যাপস চ্যালেঞ্জে!

Tuner: অসীম কুমার পাল 


টেকটিউনস বিশ্বের ১ নম্বর বাংলা  সোশ্যাল নেটওয়ার্ক! দেশের সর্ববৃহৎ, সবচেয়ে জনপ্রিয় ও ৩ কোটিরও অধিক এক সুবিশাল কমিউনিটি! প্রতিদিনই বাড়ছে এই কমিউনিটির সদস্য সংখ্যা। আমরা প্রতিদিনই টেকটিউনসের মাধ্যমে দারুন সব নিউজ জানতে পারি, শিখতে পারি দারুন সব টেকনিক।
এবার এসেছে দারুন এক সুযোগ। আমাদের সামনে বিশ্ব জয়ের হাতছানি।

কি এমন সুযোগ, যা মিস করা একদম ঠিক হবে না ?

বিশ্বের সর্ববৃহৎ হ্যাকাথন প্রতিযোগিতা ‘নাসা স্পেস অ্যাপস চ্যালেঞ্জ ২০১৬’ আয়োজন করে মহাকাশ গবেষণা সংস্থা নাসা। ন্যশনাল রাউন্ড শেষে এরই মধ্যে সেমিফাইনালে ৩য় নম্বর অবস্থানে চলে এসেছে বাংলাদেশি প্রকল্প মার্শিয়ান ওয়েসিস। এরকম একটা আন্তর্জাতিক প্রতিযোগিতায় বাংলাদেশের সেমিফাইনালে উঠে আসা গর্বের বিষয়।
এখন চলছে অনলাইন ভোট। আমরা ভোট দিয়ে বাংলাদেশকে ১ নম্বরে নিয়ে এসে বিজয়ী করতে পারি। সবকিছু রয়েছে আমাদের টেকটিউনারদের হাতে।
আসুন একটা হিসেব মেলানো যাক....
বর্তমানে
১ নং অবস্থানে আছে  ইউক্রেন (যার মোট জনসংখ্যা- ৪ কোটি ৫৫ লাখ) তারা ভোট দিয়েছে ৪৮৬৯ ভোট
২ নং অবস্থানে আছে মেসিডোনিয়া (জনসংখ্যা  মাত্র– ২১ লাখ!!!) ভোট দিয়েছে ৪৩৪০ ভোট
৩ নং অবস্থানে আছে আমাদের বাংলাদেশ (জনসংখ্যা  মাত্র– ১৬ কোটি যার মধ্যে তরুণদের সংখ্যা ১২ কোটি এবং টেকটিউনার ৩ কোটি+) ভোট দিয়েছি মাত্র ৩৬৭০ ভোট
১ নং দের থেকে আমরা পিছিয়ে আছি মাত্র ১১৯৯ ভোটে
https://2016.spaceappschallenge.org/awards এখান থেকে বর্তমান র‌্যাংক চেক করা যাবে।
আমাদের ৩ কোটির টেকটিউনস পরিবার। আমাদের সম্পূর্ণ পরিবারের যদি
১% সদস্য ভোট দেয় তাহলে ভোট হবে ৩,০০,০০০ ভোট। এতো ভোট আমাদের দরকার নেই জেতার জন্য।
০.১% সদস্য ভোট দেয় তাহলে ভোট হবে ৩০,০০০ ভোট। এতো ভোট আমাদের দরকার নেই জেতার জন্য।
০.০১% সদস্য ভোট দেয় তাহলে ভোট হবে ৩,০০০ ভোট। এটাই যথেষ্ট আমাদের বিজয় নিশ্চিৎ করার জন্য।
আমাদের টেকটিউনার পরিবার সচেতন হলে মাত্র দশ মিনিটেই আমরা নং ১ নিশ্চিৎ করে চ্যাম্পিয়ন হতে পারি।
বাংলাদেশ কে চ্যাম্পিয়ন করার এই সুযোগ আমাদের হাতছাড়া করা কি ঠিক হবে? আপনারাই বলুন।
আমি মনে করি বাংলাদেশের যেকোন অনলাইন কমিউনিটির থেকে টেকটিউনস কমিউনিটি অনেক বড় এবং সক্রিয়। আমরা কি পারি না দেশ প্রেমে উদ্বুদ্ধ হয়ে বাংলাদেশ কে ১ নং এ আনতে?

যদি আমরা পরাজিত হই তাহলে এই গ্লানি কোথায় রাখবো আসেন হিসেব মেলাই

১৬ কোটি জনসংখ্যার বাংলাদেশের ৭৫% অর্থাৎ ১২ কোটি  তরুণ সমাজ যার ৩ কোটি টেকটিউনার। আমরা যদি ৪ কোটি ৫৫ লাখ জনগণের ইউক্রেন আর মাত্র– ২১ লাখ!!! জনগণের মেসিডোনিয়ার কাছে হেরে যায় তাহলে এই লজ্জা কি আপনাকে ব্যথিত করবে না।
২০০৯ থেকে আমি টেকটিউনস এ লেখি। অনেক কিছু অর্জন করেছি টেকটিউনস থেকে। টপ টিউনারদের তালিকায় ১৯ নম্বরে আছি। কোনদিন কিছু চাই নি টেকটিউনস পরিবারের কাছে। কিন্তু এবার চাইছি বাংলাদেশের জন্য। সবাই বাংলাদেশের প্রজেক্ট "মার্শিয়ান ওয়েসিস" কে ভোট দিন। আর মাত্র ২ দিন সময় আছে। প্রতিদিন একবার করে ভোট দেয়া যাবে।
আমরা সবাই আছি নাসা স্পেস অ্যাপস চ্যালেঞ্জ ২০১৬ এ।মার্সিয়ান ওয়েসিস জিতলেই জিতে যাবে বাংলাদেশ।

ভোট দেয়ার পদ্ধতিঃ

https://2016.spaceappschallenge.org/ লিংকটিতে গিয়ে একটি অ্যাকাউন্ট খুলতে হবে।
তাহলে একাউন্ট করা হয়ে যাবে।
https://2016.spaceappschallenge.org/vote এই লিঙ্কে গিয়ে লগইন করে নিতে হবে।
লগইন করার পর এমন দেখাবে।

এখন MartianOasis কে ভোট দেয়া যাবে। একটু স্ক্রল করে নিচে যেতে হবে। তারপর MartianOasis খুজে বের করে Vote Now বাটনে ক্লিক করলেই ভোট দেয়া হয়ে যাবে।
ভোট দেয়া হয়ে গেলে রাত 12:00 পর্যন্ত দেখাবে
পরের দিন আবার ভোট দিতে পারবেন
বিঃদ্রঃ একটি অ্যাকাউন্ট থেকে প্রতিদিন একটি করে ভোট দেয়া যাবে। এভাবে আগামী ২ দিনে প্রত্যেকে আরো ২টি ভোট দিতে পারবেন।


‘মার্সিয়ান ওয়েসিস’ প্রজেক্টের জন্য শুভকামনা রইলো। আমরা ভোট দিলেই প্রকল্পটি বিজয়ী হতে পারবে বাংলাদেশ। তাই আমাদের প্রত্যেকের দায়িত্ব ভোট দিয়ে বাংলাদেশকে বিজয়ী করা।


শেয়ার করুন

লেখকঃ

আমি তাওসিফ তুরাবি, অনলাইনাম (অনলাইন + নাম) ব্লগার তাওসিফ। এখন, ২০১৬ পর্যন্ত আমি ১৬ বছরের এক কিশোর। পড়াশোনা করি শহীদ পুলিশ স্মৃতি কলেজে। টেক ব্লগ লিখতে ভালবাসি। সাইন্স ফিকশন আর গল্প লিখতে পছন্দ করি।  জিআর+ ব্লগের এর একজন প্রতিষ্ঠাতা অ্যাডমিন।
আমাদের একটা ওয়েব ডেভেলপার ফার্ম আছে যার নাম জিআর+ আইটি বাংলাদেশ
এছাড়া আমার ব্যাক্তিগত ব্লগ রয়েছে। আমার ফেসবুক আইডিতে আমার সাথে সর্বক্ষণ যোগাযোগ করতে পারবেন। 


পূর্ববর্তী পোষ্ট
পরবর্তী পোষ্ট