পোর্টফোলিও ওয়েবসাইট ডিজাইন - পর্ব ১ - পোর্টফোলিও কি এবং কেন?

কেমন আছো সকলে? পড়াশোনায় ব্যাস্ত থাকায় ব্লগপোস্ট করা নিয়মিত হয়ে ওঠে না।
এই ওয়েব ডিজাইন পোস্ট সিরিজে তোমাদের আমি পোর্টফলিও ওয়েবসাইট ডিজাইন সম্পর্কে ব্যাসিক এবং প্রফেশনাল দুইটি অংশ সম্পর্কে সম্যক ধারণা দেবো এবং টিউটোরিয়াল দেখাবো। এছাড়া তোমরা আমার একটি পোর্টফলিও ওয়েবসাইটের এইচটিএমএল টেম্পলেট বিনামুল্যে পাবে এই সিরিজে! :)



চলো আগে জেনে নেই পোর্টফোলিও কি?
চাইলে উইকিপিডিয়া থেকে দেখে নিতে পারো।

পোর্টফলিও হল ব্রিফকেইস। হ্যাঁ!
ঠিক তাই।
ব্রিফকেসের মাঝে যেরকম নানা রকম ফাইল সাজানো গোছানো থাকে, সেরকম ব্যাবস্থাকেই বলা হয় পোর্টফলিও।
আর এভাবে আমাদের কোনো কাজ সুন্দর করে সাজিয়ে ভিজিটর বা ক্ল্যায়েন্টের সামনে উপস্থাপন করার জন্য যে ওয়েবসাইট ডিজাইন করা হয় তাকে পোর্টফলিও ওয়েবসাইট বলে।


  • পোর্টফোলিও ওয়েবসাইট হচ্ছে এমন একটি ওয়েবসাইট যা একজন ব্যক্তির অথবা প্রতিষ্ঠানের গুন এবং কর্মসূচীগুলো বিশ্বের সকলের কাছে সহজে সুন্দরভাবে উপস্থাপন করার সুযোগ করে দেয়।
    সেই ওয়েবসাইটের মালিকানাধিন কোম্পানি হতে পারে গ্রাফিক ডিজাইন টিম, এনিমেশন স্টুডিও, ওয়েব ডেভেলপার টিম কিংবা যে কোন সংগঠন।
  • আবার ব্যাক্তিগত পোর্টফোলিও ওয়েবসাইট হল এমন একটি ওয়েবসাইট যা একজন ব্যক্তির গুন এবং কর্মসূচীগুলো বিশ্বের সকলের কাছে সহজে সুন্দরভাবে উপস্থাপন করার সুযোগ করে দেয়।
    সেই ওয়েবসাইটের মালিকানাধিন ব্যাক্তি হতে পারে গ্রাফিক ডিজাইনার, অ্যানিমেটর, ওয়েব ডেভেলপার, লেখক কিংবা যে কেউ।

Portfolio Website


এখন বলি, পোর্টফোলিও কেন করা হবে।
আসলে একজন ভিজিটর অথবা ক্লায়েন্ট কোনো ওয়েবসাইটের কভার পেইজে লেখা আর্টিকেল কিংবা সার্টিফিকেট দেখতে চায় না। কারন এতকিছু দেখার সময়ও তাদের হাতে থাকে না এবং তারা অধৈর্য হয়ে পরে।
তারা দেখতে চায় তুমি কি কাজ করো, কেমন করে করো।
সেটাই যদি তুমি তোমার ওয়েবসাইটে তুলে ধরতে পারো তবেই নানা রকম বেনিফিটপূর্ণ কাজ পাবার সম্ভাবনা অনেক বেড়ে যায়।

একটা পোর্টফলিও সাইটে কি কি থাকতে পারে,
  1. তুমি যেসব প্রোজেক্ট করেছ সেই সব প্রোজেক্টের লিষ্ট
  2. প্রোজেক্টের ছবি
  3. কাজের ক্ষুদ্র বর্ণনা
  4. কাজের রেইট এবং ফিস
আগামি পর্বেই শুরু হবে টিউটোরিয়াল। তাই, স্টে টিউন্ড ;) 
আমার সাথে ফেইসবুকে অ্যাড হতে পারো :)
fb.com/tawsif.torabi


শেয়ার করুন

লেখকঃ

আমি তাওসিফ তুরাবি, অনলাইনাম (অনলাইন + নাম) ব্লগার তাওসিফ। এখন, ২০১৬ পর্যন্ত আমি ১৬ বছরের এক কিশোর। পড়াশোনা করি শহীদ পুলিশ স্মৃতি কলেজে। টেক ব্লগ লিখতে ভালবাসি। সাইন্স ফিকশন আর গল্প লিখতে পছন্দ করি।  জিআর+ ব্লগের এর একজন প্রতিষ্ঠাতা অ্যাডমিন।
আমাদের একটা ওয়েব ডেভেলপার ফার্ম আছে যার নাম জিআর+ আইটি বাংলাদেশ
এছাড়া আমার ব্যাক্তিগত ব্লগ রয়েছে। আমার ফেসবুক আইডিতে আমার সাথে সর্বক্ষণ যোগাযোগ করতে পারবেন। 


পূর্ববর্তী পোষ্ট
পরবর্তী পোষ্ট